Runner Automobiles
Sea Pearl Beach Resort & SPA Ltd
Share Business Logo
bangla fonts
facebook twitter google plus rss

দুই দিনেই বাড়ি নির্মাণ করবে রোবট!


১০ আগস্ট ২০১৬ বুধবার, ০৫:৫৪  পিএম

শেয়ার বিজনেস24.কম


দুই দিনেই বাড়ি নির্মাণ করবে রোবট!

এবার স্বপ্নের বাড়ি নির্মাণ করবে রোবট। তাও আবার দুই দিনে। একটুও নড়চড় হবে না। চমক জাগানো এ রোবট আবিস্কার করেছে অস্ট্রেলিয়ার বিল্ডিং কন্সট্রাকশন কোম্পানি ‘হাডরিয়ান এক্স’।

রোবটটি মাত্র দুই দিনে পুরো একটি বাড়ি নির্মাণ করতে পারবে। বিরতিহীন এক হাজার ইট বসাতে সক্ষম হবে মাত্র এক ঘন্টায়। দিনের ২৪ ঘন্টায় কাজ করে যেতে পারবে রোবটটি। এতে তার কোনো ধরনের বিশ্রামের প্রয়োজন হবে না।

ক্যাডের করা ডিজাইন অনুযায়ী লেজার নির্দেশ দেবে কম্পিউটার। আর সেই লেজাররের নির্দেশনা অনুযায়ী কাজ করবে রোবটের হাতল। ঘন্টায় প্রায় এক হাজার ইট বসাতে সক্ষম এ রোবটটি। 

এ রোবট তৈরির পেছনে কাজ করেছে ফাস্টব্রিকস নামের এক কোম্পানি। তারা অনেকদিন ধরে এমন একটি রোবট তৈরির চেষ্টা চালিয়ে আসছিলো। যেটি স্বয়ংক্রিয়ভাবে ভবন নির্মাণ করতে পারবে। এবার তারা সফল হয়েছেন।

কোম্পানির সিইও মাইক পিভাক বলেন, “প্রযুক্তিতে আমরা খুবই অগ্রগামী একটি প্রতিষ্ঠান। এখন আমরা অটোক্যাডে থ্রিডি ছবি থেকে যেকোনো ধরনের ভবন বানাতে সক্ষম। আমাদের তৈরি রোবটটি স্বয়ংক্রিয়ভাবে ইট বালি ও সিমেন্ট দিয়ে ভবন বানাতে পারবে। তারপরও সবকিছুই স্বয়ংক্রিয়ভাবে করা যায় না। তবে সামনে এর চেয়ে আরো উন্নত রোবট তৈরি করব। এমন একটি রোবট আবিষ্কার করতে পেরে আমরা খুবই আশাবাদী। ভবন নির্মাণে একটি শৈল্পীক নির্মাতার মতো কাজ করবে রোবটটি। ভবন নির্মাণে আমরা যেমন ইট বালি ও সিমেন্ট ব্যবহার করি। ঠিক তেমনি রোবটটিও ইট বালি ও সিমেন্ট ব্যবহার করে ভবনের দেয়ালগুলো নির্মাণ করে। তাই বাড়তি আলাদা কোনো উপকরণের প্রয়োজন পড়বে না।”

ইট বসানো ছাড়াও অন্যান্য উপকরণ বসাতে পারবে রোবটটি। খুব সামান্য জায়গা ছাড়া মানুষের হাতের কোনো ছোঁয়ার প্রয়োজন পড়বে না।

রোবটটি একটি বিশাল ট্রাকের উপর স্থাপন করা। তার লম্বা হ্যান্ডেল দিয়ে প্রায় ৯২ ফুটের মধ্যে কাজ করতে পারবে। কোন স্থানে ছোট ইট লাগলে স্বয়ংক্রিয়ভাবে সাইজ করে নেবে এটি। কোন স্থানে ইটের চূর্ণ দরকার হলে ইট ভেঙ্গে চূর্ণ করে নেবে। অটোক্যাড দিয়ে ভবনের ডিজাইনের করে রোবটকে দিলে রোবট সেই ডিজাইন অনুসারে ইট বসাতে শুরু করবে। পুরো ডিজাইন যেভাবে করা হয়েছে ঠিক সেভাবে বাড়িটি নির্মাণ করবে রোবটটি।

ইট ধরতে সক্ষম হাত দিয়ে যথাস্থানে ইট বসায় রোবটটি। অটোক্যাডে ডিজাইন করা বাড়িটির মত করেই ইট বসাবে। একটুও উনিশ বিশ হবে না।

মাইক পিভাক আরো বলেন, “প্রায় ছয় হাজার বছর ধরে মানুষ ইটের কাজ শুরু করেছে। এখন তার চেয়ে স্বয়ংক্রিয়ভাবে ইট প্রসেসিং করার জন্য চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে। আমরা কয়েকটি প্রযুক্তি প্রতিষ্ঠান একসঙ্গে কাজ করেছি। তাই রোবটটি তৈরি করা সম্ভব হয়েছে।”

মিস্টার পিভাক তার এ আবিষ্কার নিয়ে খুবই আশাবাদী। তিনি মনে করেন অনেক তরুণ এ পেশায় কাজ করবে। আর পরে আরো ভালো রোবট তারা উপহার দিতে পারবে।

পুরো রোবটটি একটি ট্রাকের উপর বসানো আছে। তাই কোন জায়গায় নিয়ে যাওয়ার দরকার হলে আলাদাভাবে বহন করতে হয় না। 

রোবটটি তৈরি করতে ব্যয় হয়েছে সাত মিলিয়ন মার্কিন ডলার। দিনে ২৪ ঘন্টা করে বছরে ৩৬৫ দিনই কাজ করতে পারবে। তবে বাড়ির অন্যান্য কাজ করতে মানুষের সহযোগিতা লাগবে।

রোবটটি উত্তর আস্ট্রেলিয়ায় চালু হয়েছে। আর কিছুদিন পর সারাদেশে কার্যক্রম পরিচালনা করবে। তারপর যদি সম্ভব হয় আরো ভালো ফলাফল আসে তাহলে সারা বিশ্বে রোবটটি রপ্তানি করার চিন্তাভাবনা করছে প্রতিষ্ঠানটি।

কীভাবে রোবটটি কাজ করে?

রোবটটি কাজ করে স্বয়ংক্রিয়ভাবে। বিশাল একটি ট্রাকের উপর রোবটটি বসানো থাকে। আসলে সেই ট্রাকটিও রোবটেরই এক অংশ। তার একটি বিশাল হাতল আছে। আর ট্রাকের উপর রাখা আছে ইট, বালি ও সিমেন্ট রাখার জায়গা। কম্পিউটারে সেট করা ক্যাডের ডিজাইন থেকে ডাটা নিয়ে হাতলটি একটির পর একটি ইট নিয়ে বসাতে থাকবে। এভাবে একেরপর এক ইট বসিয়ে নির্মাণ করবে পুরো বাড়িটি।

এক জায়গায় বসানো অবস্থায় চারদিকে প্রায় ৯২ ফুট জায়গা ধরে কাজ করতে পারে। বাড়ির আকার যদি আরো বড় হয় তাহলে সেখান থেকে স্থান পরিবর্তন করে বসাতে হয়।  

পুরো দিক নির্দেশনা দেওয়া হয় লেজার সিস্টেমে। মাপ কতটুকু হবে? কোথায় কোথায় ফাঁকা রাখতে হবে? কোথায় সিমেন্ট বেশি দিতে হবে? সব সঠিকমাপে করে যাবে রোবটটি। এমনকি কোনো জায়গায় যদি ইট ভাঙ্গার দরকার হয় তাহলে নিজের মতো করে ভেঙ্গে কাজ করে নেবে। কোন রকমের হাতের ছোঁয়া ছাড়াই।

ভিডিও: 

শেয়ারবিজনেস24.কম এ প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, তথ্য, ছবি, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট বিনা অনুমতিতে ব্যবহার বেআইনি।

আপনার মন্তব্য লিখুন: