Sahre Business Logo
bangla fonts
facebook twitter google plus rss

সমাপনীতে পা দিয়ে পরীক্ষা দিচ্ছে চান মিয়া


২২ নভেম্বর ২০১৬ মঙ্গলবার, ০৫:৪৭  পিএম

শেয়ার বিজনেস24.কম


সমাপনীতে পা দিয়ে পরীক্ষা দিচ্ছে চান মিয়া

অদম্য সাহস আর দৃঢ়  মনোবল নিয়ে এগিয়ে যাচ্ছে প্রতিবন্ধী চান মিয়া। জন্ম থেকেই তার দুই হাত নেই। তার পরেও মনোবলে এতটুকু কমতি নেই তার। অন্য দশ জনের মতো তার স্বপ্ন লেখা পড়া করে আধুনিক শিক্ষায় শিক্ষিত হওয়া। শুরু থেকেই লেখাপড়ায় সে  মনোযোগী ও মেধাবী। পা দিয়ে লিখেই  প্রাথমিক সমাপনী পরীক্ষা দিচ্ছে চান মিয়া। সে টাঙ্গাইলের ঘাটাইল প্রতিবন্ধী বিদ্যালয়ের ছাত্র।

চান মিয়া ঘাটাইল উপজেলার গারট্র গ্রামের রত্না বেগম-ফজলুল হক দম্পতির ছেলে। প্রতিবন্ধী হয়ে জন্ম নিলেও সন্তানের প্রতি যত্নের কোন কমতি নেই মা রত্নার। তিনিই চান মিয়াকে ঘাটাইল প্রতিবন্ধী বিদ্যালয়ে ভর্তি করান। প্রতিদিন ১২ কিলোমিটার দূরে স্কুলে সন্তানকে নিয়ে গেছেন।

রত্না বেগম জানান, লেখাপড়া করার ইচ্ছা ওর খুব তীব্র। ওর জন্য এই পৃথিবীতে কিছু একটা করে যেতে চাই। আমি আমার ছেলেকে কোন দিন প্রতিবন্ধী হিসেবে দেখিনি। ছেলেকে শিক্ষিত মানুষ হিসেবে গড়ে তুলতে আমার চেয়ে তার বাবার উৎসাহ অনেক বেশি।বিদেশ থেকে প্রতিনিয়ত ফোন করে ছেলের খোঁজ খবর নেন।

ঘাটাইল প্রতিবন্ধী বিদ্যালয়ের চেয়ারম্যান রফিকুল বারী খান বলেন, প্রতিবন্ধীদের নিয়ে করা সংগ্রাম আজ স্বার্থক। এ বছরই প্রথম দুজন শ্রবণ, একজন করে শারিরীক ও বুদ্ধি প্রতিবন্ধী শিক্ষার্থী পিএসসি পরিক্ষায় অংশ নিয়েছে। অন্য তিন জনের চেয়ে চান মিয়া নিয়মিত স্কুলে আসতো। সে অনেক মেধাবী।

চান মিয়া বলেন, আমি লেখা পড়া করে শিক্ষক হয়ে সকলের মাঝে আলো ছড়াতে চাই।

ঘাটাইল উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা আবুল কাশেম মোহাম্মদ শাহীন  বলেন, পরীক্ষা পরিদর্শনে গিয়ে ছেলেটিকে দেখে অবাক হয়েছিলাম। তৎক্ষণাৎ তার জন্য আলাদা কক্ষের ব্যবস্থা করে দেই। তার জন্য আলাদা পরিদর্শকের ব্যবস্থা করা হয়েছে।

ঘাটাইল আর্দশ প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রের দায়িত্বপ্রাপ্ত কর্মকর্তা সহকারী উপজেলা শিক্ষা কর্মকর্তা রুবি খান বলেন, আজ সে বেঞ্চ জোড়া করে পরিক্ষা দিয়েছে। আগামীকাল থেকে তার জন্য মেঝেতে মাদুরের ব্যবস্থা করা হবে ।

শেয়ারবিজনেস24.কম এ প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, তথ্য, ছবি, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট বিনা অনুমতিতে ব্যবহার বেআইনি।

আপনার মন্তব্য লিখুন: