JAC EnergyPac Power
Crystal Life Insurance
Share Business Logo
bangla fonts
facebook twitter google plus rss

সাফকো স্পিনিংয়ের পর্ষদ পুনর্গঠন


১৩ সেপ্টেম্বর ২০২১ সোমবার, ০৩:৪৫  পিএম

নিজস্ব প্রতিবেদক

শেয়ার বিজনেস24.কম


সাফকো স্পিনিংয়ের পর্ষদ পুনর্গঠন

 

শেয়ারবাজারে তালিকাভুক্ত বস্ত্র খাতের কোম্পানি সাফকো স্পিনিং মিলস লিমিটেডের পরিচালনা পর্ষদ পুনর্গঠন করা হয়েছে।

নিয়মিত লভ্যাংশ দিতে ব্যর্থ, লোকসানি ও বন্ধ পুঁজিবাজারে এমন কোম্পানিগুলোর পরিচালনা পর্ষদ ভেঙে নতুন স্বতন্ত্র পরিচালক নিয়োগ করে আসছে নিয়ন্ত্রক সংস্থা বিএসইসি।

তার ধারাবাহিকতায় সাফকো স্পিনিং মিলসের পর্ষদ ভেঙে নতুন পর্ষদ গঠন করা হয়েছে। বোনাস লভ্যাংশের ওপর ভর করে চলা কোম্পানিটি কখনও নগদ লভ্যাংশ দেয়নি বিনিয়োগকারীদের।

প্রতি বছর বোনাস লভ্যাংশ দিয়ে পরিশোধিত মূলধন বাড়ালেও গেল দুই অর্থবছরে শেয়ারধারীদের কোনো মুনাফা দিতে পারেনি কোম্পানিটি।

গত রোববার সাফকো স্পিনিং মিলসের পরিচালনা পর্ষদকে এ সংক্রান্ত চিঠি দেয়া হয়েছে বলে বিএসইসি মুখপাত্র রেজাউল করিমন জানান।

একইসঙ্গে কোম্পানিটির আর্থিক অবস্থা খতিয়ে দেখতে বিশেষ নিরীক্ষক নিয়োগ দেওয়া হয়েছে।

সম্প্রতি দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে বিএসইসি চেয়ারম্যান শিবলী রুবাইয়াত-উল-ইসলাম বলেন, পুঁজিবাজারে এমন অনেক কোম্পানি আছে যারা প্রতিনিয়ত বোনাস লভ্যাংশ দিয়ে তাদের পরিশোধিত মূলধন এত বেশি করেছে যে, পরে সেসব কোম্পানি বোনাস লভ্যাংশ দেওয়ারও সক্ষমতা রাখে না। এতে কোম্পানির আর্থিক সক্ষমতা নষ্ট হয়ে যায়। আমরা এমন কোম্পানিগুলোর ওপর নজর রাখছি।

সাফকো স্পিনিং মিল ২০১০ সাল থেকে প্রতিবছর বোনাস লভ্যাংশ দিয়ে পরিশোধিত মূলধন বৃদ্ধি করেছে। কোনো অর্থবছরেই নগদ লভ্যাংশ দেয়নি প্রতিষ্ঠানটি।

কোম্পানিটি ২০১০ সালে ১৬ শতাংশ, ২০১১ থেকে ২০১৪ সাল পর্যন্ত ১০ শতাংশ করে, ২০১৫ সালে লভ্যাংশ না দিয়ে ২০১৬ সালে ৩ শতাংশ, ২০১৭ সালে ৪ শতাংশ এবং ২০১৮ সালে ৩ শতাংশ বোনাস লভ্যাংশ দিয়েছে।

জুন ক্লোজিংয়ের এই কোম্পানিটির নয় মাসে শেয়ার প্রতি লোকসান আছে ৪ টাকা ৩১ পয়সা।

কোম্পানিটিতে চারজন স্বতন্ত্র পরিচালকের মধ্যে আছেন, হাইকোর্টের আপিল বিভাগের সিনিয়র অ্যাডভোকেট এসএম মুনির, সেনাবাহিনীর অবসরপ্রাপ্ত কর্নেল মুস্তাফিজুর রহমান, অগ্রণী ব্যাংকের সাবেক উপ-ব্যবস্থাপনা পরিচালক ওয়ালী উল্লাহ এবং ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপক ড. সুমন দাস।

এর আগে পুঁজিবাজারের দুর্বল ও লোকসানি খাতের ১২টি কোম্পানির পরিচালনা পর্ষদ ভেঙে নতুন পর্ষদ গঠন করেছে বিএসইসি। সাফকো স্পিনিংর মাধ্যমে এই সংখ্যা দাঁড়াল ১৩টিতে।

পর্ষদ পুনর্গঠন করা কোম্পানিগুলোর মধ্যে রিং সাইন টেক্সটাইল মিলস, আলহাজ্ব টেক্সটাইল মিলস এরই মধ্যে উৎপাদন শুরু করেছে। এমারেল্ড অয়েল কোম্পানিও উৎপাদনের চূড়ান্ত পর্যায়ে আছে।

এ ছাড়া ফ্যামিলিটেক্স লিমিটেডের পুরাতন পরিচালকরা দেশে না থাকায় কোম্পানিটি চালু করা নিয়ে জটিলতা দেখা দিয়েছে। ভালো কোনো কোম্পানির সঙ্গে একত্রিত করে কোম্পানিটি আবার চালু করার পরিকল্পনার কথা জানিয়েছে বিএসইসি। একইভাবে সিএনএ টেক্সটাইল মিলসও চালু করার কথা রয়েছে।

শেয়ারবিজনেস24.কম এ প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, তথ্য, ছবি, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট বিনা অনুমতিতে ব্যবহার বেআইনি।

আপনার মন্তব্য লিখুন: