Sahre Business Logo
bangla fonts
facebook twitter google plus rss

শুল্ক তদন্তের আগে ‘বাকশক্তি’ হারালেন মূসা


১৯ এপ্রিল ২০১৭ বুধবার, ০৯:৪০  পিএম

শেয়ার বিজনেস24.কম


শুল্ক তদন্তের আগে ‘বাকশক্তি’ হারালেন মূসা

বাংলাদেশের বিতর্কিত ধনকুবের মূসা বিন শমশের বাকশক্তি হারিয়ে ফেলেছেন।

বুধবার শুল্ক গোয়েন্দাদের কাছে দেওয়া এক চিঠিতে তিনি একথা জানান।

বিবিসি বাংলার এক প্রতিবেদনে বলা হয়, চিঠির সঙ্গে তিনি ডাক্তারের সার্টিফিকেটও জমা দিয়েছেন।

শমশেরের ওই চিঠির একটি কপি বিবিসি বাংলার হাতেও পৌঁছেছে।

এতে দেখা যায় তিনি দাবি করছেন যে তার মুখের একপাশ পক্ষাঘাতগ্রস্ত। তার বাকশক্তি মারাত্মকভাবে লোপ পেয়েছে। তিনি ভালোভাবে কথা বলতে পারছেন না।
এ কারণে তিনি শারীরিক ও মানসিকভাবে ভীষণভাবে পর্যুদস্ত।

ডাক্তার তাকে দীর্ঘমেয়াদী চিকিৎসা নিতে পরামর্শ দিয়েছেন এবং বিশ্রাম নিতে বলেছেন বলে ওই চিঠিতে তিনি উল্লেখ করেন।

ওই কারণে শুল্ক গোয়েন্দা তদন্ত দলের সামনে সশরীরে হাজির হতে তিন মাস সময় চান শমশের।

একটি বিলাসবহুল গাড়ির শুল্ক ফাঁকি ও মানিলন্ডারিং সংক্রান্ত তদন্তের সূত্রে গত ২০ এপ্রিল মূসা বিন শমশেরের শুল্ক গোয়েন্দা দপ্তরে হাজির হওয়ার কথা ছিল।

গত ২১ মার্চ শুল্ক গোয়েন্দা কর্মকর্তারা শমশেরের মালিকানাধীন একটি বিলাসবহুল রেঞ্জ রোভার গাড়ি আটক করেন বলে ওই দপ্তরের পক্ষ থেকে বলা হয়েছিল।

কর্মকর্তারা বলেন, ওই গাড়িটি ভুয়া আমদানি দলিল দিয়ে অন্য একটি নম্বর দিয়ে ভোলা থেকে রেজিস্ট্রেশন করা হয় অন্য এক ব্যক্তির নামে।

রেজিস্ট্রেশনের সময় গাড়িটির রঙ সাদা থাকলেও উদ্ধারকৃত গাড়িটি হচ্ছে কালো রঙের।

কর্মকর্তারা বলেন, চট্টগ্রাম কাস্টম হাউসে ওই গাড়ির শুল্ক পরিশোধের প্রমাণ হিসেবে যে বিল অব এন্ট্রি দেখানো হয়েছে, সেটি ভুয়া।

শুল্ক কর্মকর্তারা জানান, ২১ মার্চ এ গাড়ি আটক নিয়ে সারাদিন ধরে রীতিমত নাটক চলে।

মূসা বিন শমশেরকে সেদিন সকাল আটটায় গাড়িটি হস্তান্তরের নোটিশ দেওয়া হয়।

কিন্তু তারা গাড়িটি ধানমন্ডিতে এক আত্মীয়ের বাড়িতে সরিয়ে ফেলেন। সেখান থেকেই বিকেলে গাড়িটি জব্দ করেন শুল্ক কর্মকর্তারা।

কর্মকর্তারা জানান, মূসা বিন শমশেরের বিরুদ্ধে শুল্ক আইন এবং অর্থ পাচার আইনে মামলার প্রস্তুতি নিচ্ছে শুল্ক দফতর।

এ ব্যাপারে মূসা বিন শমশেরের বক্তব্য জানার জন্য তার সঙ্গে যোগাযোগের চেষ্টা করে পাওয়া যায়নি।

শেয়ারবিজনেস24.কম এ প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, তথ্য, ছবি, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট বিনা অনুমতিতে ব্যবহার বেআইনি।

আপনার মন্তব্য লিখুন: