Oimex Electrode Limited
Share Business Logo
bangla fonts
facebook twitter google plus rss

রাতে শ্যালিকাকে তুলে নিয়ে ধর্ষণ, পরে হত্যা


১৩ মে ২০১৭ শনিবার, ০৯:৫৪  এএম

শেয়ার বিজনেস24.কম


রাতে শ্যালিকাকে তুলে নিয়ে ধর্ষণ, পরে হত্যা

কিশোরগঞ্জের নিকলী উপজেলায় রুখসানা আকতার (১৪) নামে এক মাদরাসা ছাত্রীকে ধর্ষণের পর হত্যার অভিযোগ উঠেছে তার বোনজামাই শাহীনের বিরুদ্ধে।

উপজেলার দামপাড়া ইউনিয়নের হাওর গ্রাম আলিয়াপাড়া থেকে শুক্রবার ওই কিশোরীর লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ।

নিহত রুকসানা আলিয়াপাড়া গ্রামের মো. ফাইজুলের মেয়ে। সে টেংগুরিয়া দাখিল মাদরাসায় পঞ্চম শ্রেণিতে পড়তো।

নিকলী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) নাসির উদ্দিন জানান, পাশ্ববর্তী সিংপুর ইউনিয়নের ভাটি বরাটি গ্রামের মানিক মিয়ার ছেলে শাহীনের কাছে রুকসানার বোনের বিয়ে হয়। এরপর থেকে শাহীন শ্বশুরবাড়িতেই ঘরজামাই থাকত। বৃহস্পতিবার মধ্য রাতে শাহীন রুকসানাকে কৌশলে বাড়ির পাশে হাওরে নিয়ে যায়। সেখানে তার হাত-বা বেঁধে জোরপূর্বক ধর্ষণ করে। পরে হত্যা করে তার মৃতদেহ ফেলে পালিয়ে যায় সে।

ওসি জানান, বৃহস্পতিবার রাত থেকেই পরিবারের লোকজন অনেক খোঁজাখুঁজি করেও রুখসানার কোনো হদিস পাচ্ছিলেন না। পরে শুক্রবার সকালে বাড়ির কাছেই হাওরে তার মৃতদেহ পড়ে থাকতে দেখে এলাকাবাসী। সকালে থানায় খবর দিলে ঘটনাস্থল থেকে হাত-পা বাঁধা অবস্থায় ওই কিশোরীর মৃতদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্যে হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে।  

এ ঘটনায় নিহত কিশোরীর বাবা ফাইজুল ইসলাম বাদী হয়ে থানায় একটি মামলা করেছেন বলে জানান ওসি নাসির উদ্দিন। ধর্ষক শাহীনকেও গ্রেফতারে চেষ্টা চলছে।

শেয়ারবিজনেস24.কম এ প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, তথ্য, ছবি, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট বিনা অনুমতিতে ব্যবহার বেআইনি।

আপনার মন্তব্য লিখুন: