Oimex Electrode Limited
Share Business Logo
bangla fonts
facebook twitter google plus rss

কলেজছাত্রীকে চুল ধরে মারলো বখাটেরা!


০৯ জানুয়ারি ২০১৭ সোমবার, ০৭:৩৯  পিএম

শেয়ার বিজনেস24.কম


কলেজছাত্রীকে চুল ধরে মারলো বখাটেরা!
ফাইল ছবি

রাজবাড়ী সরকারি কলেজের ছাত্রী দুই বোনকে সোমবার দিনদুপুরে লাঞ্ছিত করেছে বখাটেরা। কলেজ থেকে বাড়ি ফেরার পথে শহরের আর এস কে ইনস্টিটিউটের সামনে এ ঘটনা ঘটে। দুই বোনের একজন স্নাতক শ্রেণির ও অন্যজন এইচএসসির ছাত্রী। তাঁদের বাড়ি রাজবাড়ী সদর উপজেলায়।

ওই দুই ছাত্রীর বাবার অভিযোগ, ছোট মেয়ে যখন দশম শ্রেণিতে পড়ে, তখন থেকেই এক বখাটে তাকে উত্ত্যক্ত করে আসছিল। এই বখাটেই আজ কয়েকজনকে নিয়ে এ ঘটনা ঘটিয়েছে।

ঘটনার বিষয়ে জানতে বড় বোনের কাছে জানতে চাইলে তিনি ফোনে বলেন, সোমবার কলেজের কমন রুমের সামনে ছোট বোন বান্ধবীদের সঙ্গে গল্প করছিল। এমন সময় ওই কলেজের এইচএসসি প্রথম বর্ষের ছাত্র সুমনসহ পাঁচ-ছয়জন তাকে ডাক দেয়। কিন্তু সাড়া না দেওয়ায় বখাটেরা অকথ্য ভাষায় গালমন্দ করতে থাকে এবং পরিণাম খারাপ হবে বলেও শাসিয়ে যায়। তারা ভয়ে কলেজের অধ্যক্ষের কক্ষের সামনে এসে আশ্রয় নেয়। অনেকক্ষণ পর বখাটেরা চলে গেছে ভেবে দুই বোনসহ বান্ধবীরা চার-পাঁচজন মিলে বেলা একটার দিকে কলেজ থেকে বাড়ির উদ্দেশে বের হয়। কলেজ থেকে সামান্য কয়েক শ গজ দূরে স্থানীয় আর এস কে ইনস্টিটিউটের সামনে আসামাত্র হঠাৎ করে সুমন ও তার সঙ্গে থাকা রাহাত, রাকিব, সেলিম, কৃষ্ণ, শান্ত ও আসাদ তাদের গতিরোধ করে ছোট বোনকে গালমন্দ করতে থাকে। এর প্রতিবাদ করতে তিনি (বড় বোন) এগিয়ে এলে তাঁর মাথার স্কার্ফ টান মেরে রাস্তায় ফেলে দেয়। ছোট বোন এগিয়ে এলে বখাটেরা তাকে চুল ধরে মারতে থাকে। এ সময় স্থানীয় অনেকে বিষয়টি দেখলেও কেউ প্রতিবাদ করতে এগিয়ে আসেনি। পরে তারা সেখান থেকে কোনো রকম উঠে দৌড়ে কলেজের অধ্যক্ষের কক্ষের সামনে গিয়ে শিক্ষকদের বিষয়টি জানায়। এর মধ্যে বখাটেরাও পালিয়ে যায়।

দুই কলেজছাত্রীর বাবা জানান, ‘আমার মেয়ে রাজবাড়ী সরকারি বালিকা উচ্চবিদ্যালয়ে দশম শ্রেণিতে পড়াশোনা করার সময় শহরের মেছোঘাটা এলাকার বখাটে সুমন তাকে প্রায় উত্ত্যক্ত করত। আমি দিনমজুর মানুষ, তাই ভয়ে কোনো প্রতিবাদ করতে সাহস পায়নি। আজ এমন ঘটনা কলেজের অধ্যক্ষ মোবাইলে আমাকে জানানোর পর কলেজে ছুটে আসি। এখন কলেজ কর্তৃপক্ষ কী করে বিষয়টি দেখার পর প্রয়োজনে আমি বখাটেদের বিরুদ্ধে থানায় মামলা করব।’

রাজবাড়ী সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোহাম্মদ আবুল বাসার মিয়া বলেন, সংবাদ পাওয়ামাত্র আমি কলেজে ছুটে গিয়েছিলাম। কলেজছাত্রীর ভাষ্যমতে, সুমনসহ প্রায় সাত-আটজন বখাটে ঘটনার সঙ্গে জড়িত। এরা প্রত্যেকে রাজবাড়ী সরকারি কলেজের এইচএসসি প্রথম বর্ষের ছাত্র। বখাটেদের চিহ্নিত করে গ্রেপ্তার করতে পুলিশ কাজ করছে। এ ব্যাপারে থানায় মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে।

রাজবাড়ী সরকারি কলেজের অধ্যক্ষ জয়নাল আবেদীন জানান, এ বিষয়ে কাল মঙ্গলবার কলেজের একাডেমিক কাউন্সিলের জরুরি বৈঠক ডাকা হয়েছে। বৈঠকে সর্বসম্মতিক্রমে যে সিদ্ধান্ত হবে, তা–ই করা হবে। তিনি জানান, লাঞ্ছনার শিকার ছাত্রীর ভাষ্যমতে, হামলাকারী প্রত্যেকে এই কলেজের ছাত্র। তাদের চিহ্নিত করে অবশ্যই শাস্তিমূলক ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

শেয়ারবিজনেস24.কম এ প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, তথ্য, ছবি, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট বিনা অনুমতিতে ব্যবহার বেআইনি।

আপনার মন্তব্য লিখুন: